Close

ধর্ম না দেখে ঘৃণাভাষণের বিরুদ্ধে স্বতঃপ্রণোদিত ব্যবস্থা নিতে হবে পুলিশকে, সুপ্রিম কোর্ট

সুপ্রিম কোর্ট বলেছে, ধর্ম নির্বিশেষে ঘৃণা ভাষণের বিরুদ্ধে ব্যাবস্থা নেওয়া উচিৎ। নচেৎ যে কোন দ্বিধা আদালত অবমাননা হিসাবে দেখা হবে।

শুক্রবার, ২৮ এপ্রিল, সুপ্রিম কোর্টে  ঘৃণাভাষণ সংক্রান্ত মামলায় উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি ঘটেছে। সুপ্রিম কোর্ট তার ২০২২ সালে অক্টোবরের আদেশের সম্প্রসারণ করেছে। গত বছর অক্টোবরে সুপ্রিম কোর্ট দিল্লি, উত্তর প্রদেশ এবং উত্তরাখণ্ড পুলিশকে ঘৃণাভাষণের ঘটনাগুলোর বিরুদ্ধে স্বতঃপ্রণোদিত পদক্ষেপ নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছিল। শুক্রবার এই আদেশ সমস্ত রাজ্য এবং কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলিতে প্রসারিত করা হয়েছে৷ তাই এখন, কোনো আনুষ্ঠানিক অভিযোগের অপেক্ষা না করেই ঘৃণাভাষণের বিরুদ্ধে এফআইআর নথিভুক্ত করার জন্য রাজ্য/শাসিত অঞ্চলগুলি স্বতঃপ্রণোদিত পদক্ষেপ নিতে হবে।

সুপ্রিম কোর্ট সতর্ক করে বলেছে, ধর্ম নির্বিশেষে ঘৃণা ভাষণের বিরুদ্ধে ব্যাবস্থা নেওয়া উচিৎ। নির্দেশনা অনুযায়ী কাজ করতে কোন দ্বিধা আদালত অবমাননা হিসাবে দেখা হবে।

বিচারপতি কে এম জোসেফ এবং বি ভি নাগারথনারের বেঞ্চ দেশ জুড়ে ঘৃণামূলক অপরাধের বিভিন্ন দৃষ্টান্তের বিষয়ে ব্যবস্থা নেওয়া সংক্রান্ত পিটিশনের বিবেচনা করছেন। ঘৃণাভাষণ রোধে নির্দেশনা চেয়ে আবেদনকারী শাহীন আবদুল্লাহর পক্ষে অ্যাডভোকেট নিজাম পাশার দায়ের করা একটি আবেদনের ভিত্তিতে এই আদেশ দেওয়া হয়।

লেখক

Leave a comment
scroll to top