Close

ওয়াগনার বসের কাছে ‘কোকেনের স্তূপ’ লুকিয়ে রাখা ছিল- পুতিন

ভ্লাদিমির পুতিন বৃহস্পতিবার প্রকাশ করেছেন, বেসরকারী সামরিক কোম্পানি ওয়াগনার গ্রুপের অফিসে কোকেনের একটি স্তুপ আবিষ্কৃত হয়েছে।

ভ্লাদিমির পুতিন বৃহস্পতিবার প্রকাশ করেছেন, বেসরকারী সামরিক কোম্পানি ওয়াগনার গ্রুপের অফিসে কোকেনের একটি স্তুপ আবিষ্কৃত হয়েছে।

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বৃহস্পতিবার প্রকাশ করেছেন, বেসরকারী সামরিক কোম্পানি ওয়াগনার গ্রুপের অফিসে কোকেনের একটি স্তুপ আবিষ্কৃত হয়েছে। ওয়াগনার বস, ব্যবসায়ী ইভজেনি প্রিগোজিন, স্বল্পস্থায়ী ব্যর্থ বিদ্রোহের কাঁটায় কাঁটায় দুই মাস পর আগস্টে একটি বিমান দুর্ঘটনায় মারা যান। প্রিগোজিনের মৃত্যুতে প্রাথমিকভাবে রহস্য ঘনীভূত হয়। তাঁর মৃত্যুর জন্য যুক্তরাষ্ট্র এবং ন্যাটোর বন্ধু শক্তি রাশিয়াকে দায়ী করে।

যদিও রুশ রাষ্ট্রপতি ভ্লাদিমির পুতিন তখনই এই অভিযোগ অস্বীকার করেছিলেন। তিনি বলেছিলেন প্রিগোজিনের মৃত্যুর সাথে রাশিয়ার কোনও যোগাযোগ নেই এবং তাঁকে রাষ্ট্রীয় বীর বলেও ঘোষণা করেছিলেন। যদিও এবার পুতিন সোচিতে ভালদাই আলোচনা ক্লাবের একটি অধিবেশনে বলেছিলেন, “আমরা জানি যে ফেডারেল সিকিউরিটি সার্ভিস সেন্ট পিটার্সবার্গে কোম্পানির অফিসে শুধুমাত্র নগদ ১০ বিলিয়ন রুবেলই নয় বরং ৫ কিলোগ্রাম কোকেনও পেয়েছে”।

প্রিগোজিনের বিদ্রোহের পরপরই পুলিশ ও নিরাপত্তা কর্মকর্তারা ওয়াগনারের সম্পত্তিতে অভিযান চালায়। গত ২৩শে জুন, প্রিগোজিন ঘোষণা করেছিলেন যে তার সৈন্যরা মস্কোর দিকে অগ্রসর হবে, কিন্তু কর্তৃপক্ষের সাথে একটি চুক্তিতে পৌঁছানোর পর পরের দিনই তিনি পিছিয়ে যান। প্রিগোজিন এবং তার অনেক ঘনিষ্ঠ সহযোগী ২৩শে আগস্ট মারা যান, যখন তার ব্যবসায়িক জেট পশ্চিম রাশিয়ায় বিধ্বস্ত হয়। ভালদাই ফোরামে বক্তব্য রেখে পুতিন দুর্ঘটনার তদন্তের কিছু ফলাফল প্রকাশ করেছেন। “তদন্ত কমিটির প্রধান সম্প্রতি আমাকে জানিয়েছেন যে নিহতদের দেহে গ্রেনেডের টুকরো পাওয়া গেছে,” রুশ রাষ্ট্রপতি বলেন।

তিনি আরও বলেন “বিমানে বাইরের কোনো প্রভাব ছিল না; এটি এখন একটি নিশ্চিত সত্য।” পুতিন যোগ করেছেন যে অবশিষ্টাংশগুলি এখনও ড্রাগ এবং অ্যালকোহলের চিহ্নগুলির জন্য পরীক্ষা করা হয়নি। “আমি বিশ্বাস করি যে এই ধরনের পরীক্ষা হওয়া উচিত,” তিনি বলেছিলেন। পুতিন এর আগে ইউক্রেনে রাশিয়ার সামরিক অভিযানে তাদের ভূমিকার জন্য ওয়াগনার যোদ্ধাদের প্রশংসা করেছিলেন। একই সময়ে, তিনি আগস্টে বলেছিলেন যে প্রিগোজিন “গুরুতর ভুল” করেছিলেন এবং বিদ্রোহকে প্ররোচিত করার সময় তিনি তার নিজের লোকদের প্রতারণা করেছিলেন।

লেখক

Leave a comment
scroll to top